বার্সেলোনা ‘ছাড়ছেন’ মেসি! বার্সেলোনা ‘ছাড়ছেন’ মেসি! – SportsTour24

স্পোর্টসট্যুর ডেস্ক :: স্প্যানিশ ক্লাব বার্সেলোনার প্রাণভোমরা বলা যায় লিওনেল মেসিকে। তাঁকে ঘিরেই আবর্তিত হয় বার্সার মাঠের ফুটবল, পরিকল্পনা, সব।

 

সেই মেসি নাকি এবার বার্সা ‘ছেড়ে দিতে চাচ্ছেন’!

 

স্পেনের রেডিও কাদেনা সেরের এমন দাবিই করেছেন। সাংবাদিক মানু কারেনিয়া এক প্রতিবেদনে বলছেন, লিওনেল মেসির সঙ্গে সম্প্রতি চুক্তি নবায়নের বিষয়ে আলোচনা শুরু করেছিল বার্সেলোনা। কিন্তু সেই আলোচনা বন্ধ করে দিয়েছেন মেসি।

 

ওই প্রতিবেদনে আরো বলা হয়েছে, সাম্প্রতিক সময়ে বার্সায় কিছু ঘটনায় আর্জেন্টাইন তারকা লিওনেল মেসি (Lionel Messi) ক্ষুব্ধ ও বিরক্ত। এছাড়া দলের কোচ কিকে সেতিয়েনের সঙ্গেও তাঁর মতভেদ দেখা দিয়েছে। বর্তমানে দলের মান নিয়েও সন্তুষ্ট নন মেসি। এরকম অবস্থায় মেসি নাকি ক্লাব কর্তৃপক্ষকে বলে দিয়েছেন, তিনি আর বার্সায় থাকছেন না।

 

মেসির বেশ কিছু ঘনিষ্ঠ সূত্রকে উদ্ধৃত করে সাংবাদিক মানু কারেনিয়া উল্লেখ করেছেন, আর্জেন্টাইন তারকা বার্সার জন্য বোঝা হতে চান না। ক্লাবে যতোদিন তাঁর মূল্য ও সম্মান থাকবে, ততোদিন তিনি বার্সাকে নিজের অঙ্গ বলে মনে করবেন।

 

কিন্তু প্রশ্ন ওঠেছে, হঠাৎ কী কারণে Barcelona মূল্য দিচ্ছে না মেসিকে? নিজেকে কী দলের মধ্যে একা অনুভব করছেন মেসি? তিনি বার্সা ছাড়তে চাইলে যাবেন কোথায়?

 

উত্তর খুঁজতে গিয়ে জানা যাচ্ছে, ক্লাব কর্তৃপক্ষ এমন কিছু বিষয়ে মেসিকে দোষারূপ করছেন, যাতে আদতে তাঁর সংশ্লিষ্টতা নেই। এছাড়া বার্সার দীর্ঘমেয়াদী কোনো পরিকল্পনা না দেখে বিরক্ত মেসি। এমনকি দলের ভেতরের খবর সংবাদমাধ্যমে চলে আসছে দেখে তিনি উষ্মা প্রকাশ করেছেন।

 

খবরে প্রকাশ, বার্তামেউর অধীনে যতোদিন বার্সার বোর্ড থাকবে, ততোদিন নতুন চুক্তি করবেন না মেসি। ২০২১ সালের জুনে বার্সেলোনার নতুন বোর্ড নির্বাচন। এর মধ্য দিয়ে নতুন বোর্ড সভাপতি আসবে বার্সায়। আর ওই জুন মাস অবধিই বার্সার সঙ্গে চুক্তি আছে মেসির। যদি ওই সময় নতুন বোর্ড সভাপতি নির্বাচিত হন, তবে হয়তো চুক্তি নবায়ন করতে পারেন তিনি।

 

তবে এসব বিষয়ে বার্সেলোনা বা মেসি কেউই মুখ খুলছেন না। ফলে প্রকৃত পরিস্থিতি জানতে অপেক্ষায় থাকতেই হচ্ছে।

 

বার্সেলোনার সঙ্গে সর্বশেষ ২০১৭ সালে চুক্তি করেন মেসি। ওই চুক্তির মেয়াদ ২০২০-২১ মৌসুম অবধি।

 

লিওনেল মেসি গেল ২৪ জুন ৩৩ বছর পূর্ণ করেন। গেল মঙ্গলবার (৩০ জুন) তিনি ক্যারিয়ারে ৭০০ গোলের মাইলফলকে পা রাখেন। চলতি মৌসুমে লা লিগার শিরোপা দৌড়ে রিয়াল মাদ্রিদের চেয়ে ৪ পয়েন্ট পিছিয়ে আছে বার্সেলোনা।

 

কয়েকদিন আগে গুঞ্জন দেখা দেয়, বার্সায় কোন্দল দেখা দিয়েছে। কিকে সেতিয়েনের অধীনে খুশি নন মেসি। কোচ সেতিয়েন কিছু মতপার্থক্যের কথা স্বীকারও করেন। এছাড়া গেল জানুয়ারিতে ওই সময়কার কোচ এরনেস্তো ভালভেরদের ছাঁটাইয়ের পেছনেও নাকি মেসির হাত ছিল।

 

এদিকে, সর্বদা স্বল্পভাষী ও শান্ত মেজাজের মেসিকে ইদানিং মাঠের মধ্যেই অন্যরূপে দেখা যাচ্ছে। কয়েকদিন আগে প্রতিপক্ষের এক খেলোয়াড়কে রীতিমতো ধাক্কাও মেরে বসেন তিনি।

 

সাম্প্রতিক সময়ে দলের অভ্যন্তরীণ নানা বিষয় নিয়েও মুখ খুলতে শুরু করেছেন আর্জেন্টিনার তারকা। ভালভেরদের বিদায়ের পর বার্সার স্পোর্টিং ডিরেক্টর এরিক আবিদাল দাবি করেন, তাঁর (ভালভেরদ) সময়ে কিছু ফুটবলার মাঠে শতভাগ দেন নি।

 

এমন মন্তব্যের তীব্র প্রতিবাদ ও সমালোচনা করেন মেসি। পরে দুজনের সঙ্গে আলোচনায় বসতে হয়েছিল ক্লাব সভাপতি মারিয়া বার্তামেউরকে।

শেয়ার করুন :