বাংলাদেশের ফুটবলে আবারও পল স্মলি? বাংলাদেশের ফুটবলে আবারও পল স্মলি? – SportsTour24

স্পোর্টসট্যুর প্রতিবেদক :: পল স্মলি চলে গেছেন গেল অক্টোবরে। এখন বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন (বাফুফে) আবারও তাঁকে ফেরাতে চায়। আগে টেকনিক্যাল ও স্ট্র্যাটেজিক ডিরেক্টর পদে তিন বছর কাজ করে যাওয়া স্মলিকে আবারও দুই বছরের জন্য দায়িত্ব দিতে চায় বাফুফে।

 

বাফুফের টেকনিক্যাল কমিটি রোববার সভায় বসে। অনলাইনে হওয়া এ সভায় পল স্মলিকে ফেরানোর বিষয়ে সিদ্ধান্ত হয়। তবে টেকনিক্যাল কমিটি নিজেদের সিদ্ধান্ত পাঠাবে কার্যনির্বাহী কমিটিতে। সেখানে অনুমোদন পেলে পল স্মলির সাথে যোগাযোগ করা হবে।

 

সভা শেষে বাফুফের টেকনিক্যাল কমিটির চেয়ারম্যান তাবিথ আওয়াল বলেন, ‘ফিফার আওতায় থাকার জন্য টেকনিক্যাল ডিরেক্টরের পদটা অত্যন্ত জরুরি। ফান্ড পাওয়ার জন্য, কোনো প্রস্তাবনা ডেভেলপ করার জন্য জরুরি।’

 

পল স্মলি বাফুফের ‘টেকনিক্যাল ও স্ট্র্যাটেজিক ডিরেক্টর’নামের গুরুত্বপূর্ণ পদে ছিলেন তিনি বছর। ২০১৬ সালের জুনে বাংলাদেশে আসেন তিনি। মেয়াদ শেষে গত অক্টোবরে তিনি নিজ দেশ অস্ট্রেলিয়ায় ফিরে যান। ওই তিন বছরে তাঁর হাত ধরে উল্লেখযোগ্য সাফল্য আসেনি। মেয়েদের ফুটবলে বয়সভিত্তিক পর্যায়ে খানিকটা সাফল্য আর কোচদের প্রশিক্ষণ ছাড়া বলার মতো কিছু নেই। ছেলে ও মেয়েদের জাতীয় দলের ক্ষেত্রে তেমন কিছু করতে পারেননি এই অজি।

 

এবার আরেক দফা তাঁকে দায়িত্ব দিতে চাইছে বাফুফে।

 

এক্ষেত্রে স্মলির ‘সফলতা’ দেখতে পাচ্ছেন তাবিথ আউয়াল, মেয়েদের ফুটবলের উন্নয়নটাও আমাদের জন্য বড় অর্জন। যার মাধ্যমে আমাদের নারীরা উৎসাহ পেয়েছে। আন্তর্জাতিক মহলে অনেক দেশেও কিন্তু বাংলাদেশের পতাকা উড়েছিল মেয়েদের মাধ্যমে। এর বাইরে, আমরা চার বছর আগে যখন দায়িত্ব নিই, তখন আমাদের ৭০ জনের নিচে সার্টিফিকেটধারী কোচ ছিল, এখন কিন্তু চারশরও বেশি। এরমধ্যে অনেক টেকনিক্যাল কোচও বেরিয়ে এসেছে। এখানে কিন্তু স্মলির অবদান আছে।’

 

তিনি বলেন, ‘অতীতকে বিবেচনা করে, অন্যদের সঙ্গে আলোচনা করে পল স্মলিকে এই পদে নিয়োগ দেয়ার জন্য আমরা সুপারিশ করছি বাফুফের কার্যনির্বাহী কমিটিকে। আশা করি আগামিতে পল স্মলিকে দেখতে পাবো।’

 

 

এদিকে, এ সভায় দেশের বিভিন্ন একাডেমি ও তৃণমূল পর্যায়ের ফুটবলের উন্নয়ন নিয়েও আলোচনা হয়েছে বলে জানিয়েছেন তাবিথ আওয়াল।

 

তিনি বলেন, ‘আমরা চিহ্নিত করেছি, দেশে ছেলেদের ১২০টা ফুটবল একাডেমি আছে। যেগুলো ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে চলমান রয়েছে। চেষ্টা করবো এই ১২০টা বা তারও বেশি হতে পারে, সেগুলোকে বাফুফের সঙ্গে প্রাথমিকভাবে তিনটি গ্রেড তথা ১ স্টার, ২ স্টার ও ৩ স্টার গ্রেডে যুক্ত করার জন্য।’

 

তিনি জানান, এএফসি ‘এ’ কোচিং কনভেনশনের আওতায় দেশের সকল কোচের সার্টিফিকেট নবায়ন এবং তৃণমূল ফুটবলের উন্নয়নের জন্য ‘পাইলট প্রজেক্ট’ হিসেবে দেশের চারটি অঞ্চলে খেলোয়াড়দের প্রশিক্ষণ শুরুর সিদ্ধান্তও নেওয়া হয়েছে টেকনিক্যাল কমিটি সভায়।

 

কমিটির চেয়ারম্যান তাবিথ আউয়ালের সভাপতিত্বে সভায় উপস্থিত ছিলেন ডেপুটি চেয়ারম্যান আমিরুল ইসলাম বাবু, সদস্য ইউসুফ বিন জলিল, ইমতিয়াজ হামিদ সবুজ, সাইফুর রহমান মনি এবং বাফুফের সাধারণ সম্পাদক আবু নাইম সোহাগ।

শেয়ার করুন :