নেইমারের অভিযোগ ঘিরে তদন্ত শুরু নেইমারের অভিযোগ ঘিরে তদন্ত শুরু – SportsTour24

স্পোর্টসট্যুর ডেস্ক :: কড়া অভিযোগ করেছেন পিএসজি তারকা নেইমার। তাঁর অভিযোগ, গেল রোববার মার্শেইয়ের বিপক্ষে ম্যাচে দলটির আলভারো গঞ্জালেস তাঁকে বর্ণবিদ্বেষী মন্তব্য করেছেন।

 

নেইমারের এই অভিযোগ ঘিরে শুরু হয়েছে তদন্ত। ওই ম্যাচে ৫ লাল কার্ড ও ১২ হলুদ কার্ড দেখানোর যৌক্তিকতা, আলভারোকে ডি মারিয়ার থুতু দেওয়ার সত্যতা, লেভিন কুরজাওয়ার লাথি মারার প্রসঙ্গও তদন্ত করছে ফরাসি লিগ ওয়ান শৃঙ্খলা কমিটি।

 

লিগ ওয়ানের ম্যাচে গেল রোববার মুখোমুখি হয়েছিল পিএসজি-অলিম্পিক মার্শেই। ম্যাচে ১-০ গোলে হারে ফরাসি চ্যাম্পিয়নরা। ওই ম্যাচে ছিল উত্তেজনার ছড়াছড়ি। ৩৬ বার ফাউল হয় ম্যাচে। ম্যাচের শেষ দিকে একটি ফাউলকে কেন্দ্র করে তুমুল হাতাহাতিতে লিপ্ত হন উভয় দলের খেলোয়াড়রা।

 

এ ঘটনায় রেফারি পিএসজির নেইমার, লেভিন কুরজাওয়া ও লিয়ান্দ্রো দানিয়েল পারেদেস এবং মার্সেইয়ের জর্ডান আমাভি ও দারিও বেনেদেত্তোকে লাল কার্ড দেখান।

 

ম্যাচ শেষে নেইমার অভিযোগ করেন, মার্শেইয়ের আলভারো গঞ্জালেস তাঁকে বর্ণবিদ্বেষী মন্তব্য করায় তিনি মেজাজ ধরে রাখতে পারেন নি।

 

নেইমারের অভিযোগ নিয়ে শুরু হয় তোলপাড়। কারণ, বর্ণবাদ একটি ঘৃণিত ও গর্হিত কাজ। নেইমারকে সমর্থন দিয়ে পিএসজি অভিযোগের তদন্ত করারও দাবি জানায়।

 

এরই প্রেক্ষিতে তদন্ত শুরু করেছে লিগ ওয়ান শৃঙ্খলা কমিটি। একই সাথে অন্যান্য অভিযোগগুলো নিয়েও শুরু হয়েছে তদন্ত।

 

অভিযোগ যদি প্রমাণিত হয়, তবে আলভারো ১০ ম্যাচ নিষিদ্ধ হতে পারেন।

 

নেইমারকে ‘পূর্ণ সমর্থন’ দিল পিএসজি

নেইমারসহ পাঁচজনকে লাল কার্ড, হারলো পিএসজি

 

আলভারো গঞ্জালেসের অভিযোগ, পিএসজির ডি মারিয়া তাঁকে থুতু দিয়েছেন। এটা প্রমাণিত হলে তিনি ছয় ম্যাচের জন্য নিষিদ্ধ হতে পারেন।

 

ওদিকে, পিএসজির লেভিন কুরজাওয়া ওই হাতাহাতির সময় লাথি মারেন বলেও অভিযোগ ওঠেছে। এটি প্রমাণিত হলে তাকে সাত ম্যাচের জন্য নিষিদ্ধ করা হবে।

শেয়ার করুন :