দলে হাতাহাতি, খুশি কোচ মরিনহো! দলে হাতাহাতি, খুশি কোচ মরিনহো! – SportsTour24

স্পোর্টসট্যুর ডেস্ক :: খেলোয়াড়দের মধ্যে হাতাহাতি, ধাক্কাধাক্কি হওয়ার ঘটনা বিরল কিছু নয়। হতে সেই হাতাহাতি বা ধাক্কাধাক্কি হয় প্রতিপক্ষের দলের কারোর সাথে। নিজ দলের খেলোয়াড়রা কখনো হাতাহাতিতে লিপ্ত হয়?

 

এমন অবিশ্বাস্য কাণ্ডই ঘটেছে ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগে টটেনহামের খেলোয়াড়দের মধ্যে। আর এই হাতাহাতি দেখে দলটির কোচ হোসেন মরিনহো বলছেন, তিনি খুশি। এটা নাকি ‘সুন্দর দৃশ্য’!

 

কাল ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগে (ইপিএল) ম্যাচ ছিল টটেনহান আর এভারটনের। ম্যাচের বিরতির ঠিক আগে সন হিউং-মিন একবার বলের ওপর নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে বসেন। কিন্তু বলের নিয়ন্ত্রণ পাওয়ার চেষ্টা না করেই তিনি গা ছাড়া ভাব দেখান। এ সুযোগ এভারটনের স্ট্রাইকার রিচার্লিসন গোল করতে বসেছিলেন।

 

বিষয়টি মোটেও ভালো লাগে নি টটেনহামের অধিনায়ক ও গোলরক্ষক হুগো লরিসের। ক্ষোভ দেখা যায় তাঁর চোখেমুখে।

 

পরে বিরতিতে যাওয়ার সময় সন হিউং-মিনের দিকে এগিয়ে যান টটেনহাম অধিনায়ক। দুজনের মধ্যে ম্যাচের ওই বিষয়টি নিয়ে কথা কাটাকাটিও হয়। একপর্যায়ে সনকে ধাক্কা দেন লরিস। এর প্রতিক্রিয়ায় সনও ধাক্কা মারতে যান লরিসকে। এর মধ্যে দুই সতীর্থ জিওভানি লো সেলসো ও হ্যারি উইনকস এগিয়ে এসে উভয়কে থামিয়ে দেন।

 

ম্যাচ শেষে বিষয়টি নিয়ে সংবাদমাধ্যমের প্রশ্নের মুখে পড়েন টটেনহামের কোচ হোসে মরিনহো।

 

তিনি বলেন, ‘এটা (ধাক্কাধাক্কি) খুবই সুন্দর দৃশ্য। এটা সম্ভবত আমাদের বৈঠকেরই ফল।’

 

কিসের বৈঠক?
আগের ম্যাচে টটেনহাম ১-৩ গোলে হেরে বসে শেফিল্ডের কাছে। এ নিয়ে টিম মিটিংয়ে কড়া কথা বলেছেন কোচ হোসে মরিনহো। তিনি খেলোয়াড়দের মধ্যে জয়ের তাড়না বেশি করে দেখার কথা বলেছিলেন তিনি।

 

সেই ‘তাড়না’ থেকেই নাকি হুগো লরিস ও সন হিউং-মিন ধাক্কাধাক্কিতে লিপ্ত হয়েছেন। আর এটা ‘দোষে কিছু নয়’।

 

হোসেন মরিনহো বলেন, ‘ভালো ছেলেদের দল মৌসুম শেষে একটাই ট্রফি জেতে, সেটা হচ্ছে ফেয়ার প্লে ট্রফি। আমি ওটা কখনো জিতিনি, আমার ওই ট্রফির প্রতি কোনো আগ্রহও নেই।’

 

তিনি বোঝাতে চাইছেন, জিততে হলে ওরকম ধাক্কাধাক্তি একটু-আধটু করাই লাগে!

 

প্রসঙ্গত, এভারটনের বিপক্ষে ম্যাচটি ১-০ গোলে জিতে নেয় টটেনহাম।

শেয়ার করুন :