‘গোপন ডেলিভারি’ নিয়ে ব্যস্ত তাইজুল ‘গোপন ডেলিভারি’ নিয়ে ব্যস্ত তাইজুল – SportsTour24

স্পোর্টসট্যুর প্রতিবেদক :: শুধু ফিটনেস ঠিক রাখাই নয়, বাঁহাতি স্পিনার তাইজুল ইসলাম নিজের অস্ত্রভাণ্ডারে ‘গোপন ডেলিভারি’ যোগ করা নিয়ে ব্যস্ত সময় পার করছেন। নিজের বোলিং অ্যাকশন পাল্টে বাংলাদেশ টেস্ট দলের এই নিয়মিত মুখ ওয়ানডে আর টি-টোয়েন্টি দলেও জায়গা পেতে চাইছেন।

 

বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) তত্ত্বাবধানে একক অনুশীলন করছেন তাইজুল ইসলাম। মিরপুর শের-ই-বাংলা জাতীয় স্টেডিয়ামে আজ অনুশীলন শেষে নিজেকে নতুন করে গড়ার কথা জানালেন তাইজুল।

 

বললেন, ‘সব ফরম্যাট খেলতে চাই বলেই নিজেকে বদলে ফেলার চেষ্টা করছি। বোলিংয়ে কিছু পরিবর্তন এনেছি। বোলিং অ্যাকশনের পাশাপাশি আমি নির্দিষ্ট একটি ডেলিভারি রপ্ত করার চেষ্টা করছি। আশা করি, খুব বেশি সময় লাগবে না। তবে এই মুহূর্তে বিষয়টি গোপনই থাকুক। যখন পুরোপুরি রপ্ত করতে পারবো, তখন জানাব ডেলিভারিটি আসলে কী।’

 

টেস্ট দলে নিয়মিত হলেও তাইজুল ইসলাম ওয়ানডে কিংবা টি-টোয়েন্টি দলে নিজের পায়ের তলে শক্ত মাটি খুঁজে পান নি। ওয়ানডে অভিষেকেই হ্যাটট্রিক করে ইতিহাস গড়া এই স্পিনারের ঝুলিতে আছে মাত্র ৯টি ওয়ানডে খেলার অভিজ্ঞতা। আর টি-টোয়েন্টি মাত্র ২টি খেলতে পেরেছেন।

 

তাইজুল তাই ওয়ানডে আর টি-টোয়েন্টি দলে নিয়মিত হতে মরিয়া। তাঁকে নিয়ে বিসিবির উদ্দেশ্যও পরিষ্কার ছিল না। তাইজুলকে শুধু টেস্ট দল ঘিরেই পরিকল্পনা ছিল বিসিবির। তবে সেই ভাবনায় পরিবর্তন এসেছে। যার ফলে ২৮ বছর বয়সী এই স্পিনারকে সাদা বলের চুক্তিতেও রেখেছে বিসিবি।

 

বাংলাদেশের স্পিন বোলিং কোচ ও নিউজিল্যান্ডের সাবেক বাঁহাতি স্পিনার ড্যানিয়েল ভেট্টোরি কাজ করেছেন তাইজুলকে নিয়ে। বোলিংয়ে ছোটখাটো কিছু পরিবর্তনে তাইজুল যে তিন সংস্করণেই নিয়মিত হতে পারেন, সেই প্রেরণা যুগিয়েছেন ভেট্টোরি।

 

তাইজুল ইসলাম বলছিলেন, ‘নিজেই চেষ্টা করছিলাম, বোলিং অ্যাকশন পরিবর্তন এনে কিছু করা যায় কিনা। দেখলাম, বল ভালোই হচ্ছে। এরপর কোচের (ভেট্টোরি) সঙ্গে বোলিং অ্যাকশনের ভিডিও নিয়ে আলাপ হলো। উনি ইতিবাচক মন্তব্য করার কারণেই এটি নিয়ে কাজ করছি।’

 

বোলিং অ্যাকশন বদলে উপকার পাচ্ছেন তাইজুল। অনেক অপশন তৈরি হচ্ছে তাঁর জন্য।

 

যেমনটি তিনি বলছিলেন, ‘বোলিং অ্যাকশনে পরিবর্তনের জন্য বলে প্রচুর ভেরিয়েশন পাচ্ছি। আমার কাছে তাই অনেক অপশন তৈরি হচ্ছে। ভেরিয়েশন থাকলে সব কন্ডিশনেই ভালো করা সম্ভব। সবকিছু মিলিয়েই এই সিদ্ধান্ত নেওয়া। সত্যি কথা বলতে সব ফরম্যাটে, সব কন্ডিশনে যেন সাফল্য পাই, এই ভাবনাগুলো কাজ করেছে।’

শেয়ার করুন :