অবাক হারের পর অস্ট্রেলিয়া অধিনায়কের ‘শিক্ষা’ অবাক হারের পর অস্ট্রেলিয়া অধিনায়কের ‘শিক্ষা’ – SportsTour24

স্পোর্টসট্যুর ডেস্ক :: ম্যাচ শেষে অবাক সবাই। এমন ম্যাচ কেউ হারে! ৩৬ বলে যেখানে প্রয়োজন ৩৯ রান, হাতে পুরো ৯ উইকেট! তারপরও অস্ট্রেলিয়া হেরেছে অবিশ্বাস্যভাবে। ম্যাচ শেষে অস্ট্রেলিয়ার অধিনায়ক বলছেন, ‘শিক্ষা হয়েছে’।

 

ইংল্যান্ড কাল শুক্রবার সাউদাম্পটনে অস্ট্রেলিয়াকে তিন ম্যাচ সিরিজের প্রথম টি-টোয়েন্টিতে ২ রানে হারিয়েছে।

 

৭ উইকেটে ১৬২ রান করেছিল ইংল্যান্ড। ডেভিড মালান ৬৬, জস বাটলার ৪৪ রান করেন। রিচার্ডসন, ম্যাক্সওয়েল, অ্যাগার নেন ২টি করে উইকেট।

 

জবাব দিতে নেমে অস্ট্রেলিয়ার শুরুটা হয় দুর্দান্ত। উদ্বোধনী জুটিতে অ্যারন ফিঞ্চ ও ডেভিড ওয়ার্নার মিলে ১১ ওভারে করেন ৯৮ রান। ফিঞ্চ ৩২ বলে ৪৬ রান করে বিদায় নেন। এরপর আদিল রশিদের এক ওভারে ফিরে যান স্টিভেন স্মিথ ও গ্লেন ম্যাক্সওয়েল। ৫৮ রান করা ওয়ার্নারও ফিরে বাজেট শটে।

 

চাপে পড়ে যায় অজিরা। সেই চাপ থেকে বেরিয়ে আসতে পারেনি তাঁরা। শেষ পর্যন্ত ৬ উইকেটে ১৬০ রানে গিয়ে থামে সফরকারীরা। জফরা আর্চার ও আদিল রশিদ ২টি করে উইকেট দখল করেন।

 

ম্যাচ শেষে অস্ট্রেলিয়ার অধিনায়ক অ্যারন ফিঞ্চ বলেন, ‘আমরা জানতাম, ইংল্যান্ড প্রবলভাবে ঘুরে দাঁড়ানোর চেষ্টা করবে। তারা খুব ভালোভাবে পরিকল্পনার বাস্তবায়ন করেছে। ১২ থেকে ১৮ ওভার পর্যন্ত আমরা বাউন্ডারি আদায় করতে ধুঁকেছি। এবারই প্রথমবার এরকম হলো না। এটা নিয়ে আমরা কাজ করছি। যতক্ষণ পর্যন্ত ছেলেরা শিখছে এবং উন্নতি করছে… শিক্ষা এবারও হয়েছে।’

 

স্মিথ ও ম্যাক্সওয়েলের শট নির্বাচন নিয়ে প্রশ্ন ওঠলেও অধিনায়ক তাঁদের পাশেই দাঁড়ালেন, ‘ওরা দুজনই পরিকল্পনা অনুযায়ীই শট খেলেছে। যদি পরিকল্পনা ও বাস্তবায়ন আলাদা করে ভাবেন, তাহলে আরেকটু গভীরভাবে বুঝতে পারবেন। টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটের ব্যাপারটিই হলো সুযোগ খোঁজা। আমি বরং ডেভি (ওয়ার্নার) ও আমাকেই বেশি দায় দেব। আমরা দুজনই ভালো খেলছিলাম, কিন্তু কেউই ম্যাচ জয়ের মতো অবদান রাখতে পারিনি।’

শেয়ার করুন :